সিজারের কতদিন পর জার্নি করা যায়

সিজারের কতদিন পর জার্নি করা যায়

পোস্টসূচীপত্রসিজারের কতদিন পর জার্নি করা যায় - প্রসব এর পর নারীদের অনেক রকম সমস্যা দেখা যায়। অনেকে চিন্তিত হয়ে আছে, যারা ভিবিন্ন রকম চাকুরীজীবি তারা জার্নি করার কথা চিন্তা করে থাকেন। আবার অনেকে আছে ভ্রমণ পিপাসু তারা ও এই কথা চিন্তা করে যে সিজারের কতদিন পর জার্নি করা যায়। সিজারের পর প্রতিটা নতুন দম্পতি এই সমস্যায় ভুগেন।

আমরা ও আপনাদের এই তথ্য দেওয়ার চেষ্টা করবো যে সিজারের কতদিন পর জার্নি করা যায়সিজারের পর ব্যথা কতদিন থাকে, সিজারের কতদিন পর সেলাই মেশিন চালানো যায় , সিজারের কত দিন পর্যন্ত ব্লিডিং হয় ? সিজারের কতদিন পর সেলাই শুকায় ? সিজারের কতদিন পর ভারী কাজ করা যায় এবং সিজারের কতদিন পর বাচ্চা নেওয়া যায় এই সব বিষয় নিয়ে আলোচনা হবে বন্ধুত্বপূর্ণ ভাবে। সঙ্গ দিবেন আশা করি। 

সিজারের কতদিন পর লং জার্নি kora যাবে


মেয়েদের সিজারের মাধ্যমে সন্তান প্রসব করার পর কিছু সাবধনতা অবলম্ভন করতে হয়। কারণ একে সন্তান জন্মদান করা এবং আবার শরীরের মধ্যে অস্ত্রোপচার। দুটিও খুব সংবেদনশীল। কিন্তু অনেকে চিন্তিত হয়ে পড়ে যে সিজারের কতদিন পর লং জার্নি করা যায়। কারণ এদের মধ্যে অনেকে আছে চাকুরীজীবি, আবার কেউ আছে প্রয়োজনের ক্ষেত্রে জার্নি করা প্ৰয়োজন হয়ে পড়ে। অনেক কারণে জার্নি করাটা অবসম্ভাবী হয়ে যায়। 

কিন্তু ডাক্তারি ভাষায় বলছে একটি মায়ের সিজার হয়ে যাওয়ার পর অন্তত তিন মাস পর্যন্ত জার্নি করা থেকে বিরত থাকা। লং জার্নি kora তো একদম যাবে না।  এতে করে বাচ্চাও সুস্থ থাকে। মা ও সুস্থ থাকে। কারণ সিজার করার পর সেটা শুকাতে ও অনেক সময় লাগে। তাই ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী জার্নি করা খুব দরকার। তবে বলা রাখা ভাল যে। 

অনেকের সিজার অনেক রকম। যেমন অনেকের সিজার একটু জটিল আবার অনেকের সিজার একটু নরমাল বা তেমন জামেলা থাকে না। সেই ক্ষেত্রে ডাক্তারই ভাল পরামর্শ দিতে পারবে সিজারের কতদিন পর লং জার্নি kora  যাবে।

সিজারের পর ব্যথা কতদিন থাকে


সিজারের পর কতদিন পর্যন্ত ব্যথা থাকে দু তিন সপ্তাহ পর্যন্ত। চিকিৎসা বিজ্ঞান বলছে একজন সিজারিয়ান মহিলার সিজারের জায়গায় দুই থেকে তিন সপ্তাহ পর্যন্ত ব্যথা থাকতে পারে। আবার অনেকের ক্ষেত্রে এই ব্যথা কয়েক সপ্তাহ পর্যন্ত ব্যথা থেকে যায়। কারণ এখানে কথা হচ্ছে ব্যথা শুকানোর জন্যে কিছু নিয়ম পালন করতে হয়। ঠিক ঠাক মত যদি নিয়ম পালন করে। তাহলে এই ব্যথা খুব তাড়াতড়ি সেরে যায়। নিয়ম গুলি হলো

  • ভারী কোন জিনিস বহন করা থেকে বিরত থাকা। 
  • ভিটামিন জাতীয় খাবার খাওয়া 
  • নিয়মিত মেডিসিন নেওয়া 

সিজারের কত দিন পর্যন্ত ব্লিডিং হয় ?


সিজারের কতদিন পর্যন্ত ব্লিডিং হয় এইটা ও একটা গুরুত্পূর্ন বিষয়। সিজারিয়ানদের জন্যে। মেডিকেল বলছে সিজারের পর বা অপারেশনের পর মেয়েদের যোনিপথ দিয়ে অন্তত এক থেকে দেড় মাস পর্যন্ত রক্ত যাওয়ার সম্ভবনা রয়েছে। এই সময় পর্যন্ত রক্ত যেতে পারে অথবা স্রাব ও যেতে পারে। 

তবে তাতে ঘাবড়াবার কিছু নেই। নিয়মিত ডাক্তারের পরামর্শ নিয়ে চললে এই সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়া যায়। তবে অনেকের এর চেয়ে কম ও যায় আবার বেশি ও যায়। এইগুলি একেক মেয়েদের শারীরিক অবস্থার উপর নির্ভর করে। বা হরমোনের উপর নির্ভর করে। মোট কথা হচ্ছে সিজারের এক মাস বা দেড় মাস পর্যন্ত ব্লিডিং হয় । 

সিজারের কতদিন পর সেলাই শুকায়


প্রসুতি নারীদের সিজার করার পর চিন্তা থাকে যে সিজারের কতদিন পর সেলাই শুকায়। কারণ সিজারের ব্যথা এবং তার উপর আবার এই সিজারের সেলাই নিয়ে চিন্তা থাকে। কিন্তু সিজারের সময় পেটের যে অংশে কেটে সেলাই করা হয়। সেই সেলাই যদি সুতা দিয়ে সেলাই করে তা শুকাতে অন্তত ৫ থেকে ৭ দিন পর্যন্ত সময় লাগে। 


এবং ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী স্বাস্থ্যকেন্দ্রে গিয়ে সেই সেলাই ৫-৭ দিনের পর কেটে ফেলা হয়। তবে শরীরে মিশে যায় এই রকম সুতা ও থাকে। তবে পরামর্শ দিব যে সিজারের কতদিন পর সেলাই শুকায় সেটা আপনি স্বাস্থ্যকেন্দ্রের ডাক্তারদের সাথে পরামর্শ করে আরো ভালো ভাবে জেনে নিবেন । 


আর ও পড়ুন ঃ

ছাত্র জীবনে মোবাইল ফোনের অপকারিতা

মোবাইলের ব্যাটারি ফুলে যায় কেন

নারী উন্নয়ন বলতে কি বুঝায় ? বাংলাদেশের উন্নয়নে নারীর ভূমিকা কি ?


সিজারের কতদিন পর ভারী কাজ করা যায়


সিজারের পর অনেক দিন পর্যন্ত মেয়েদের একটু নিরাপদে থাকতে হয়। কারণ ক্ষত শুকাতে অনেকদিন সময় লাগে। এবং এর মধ্যে অনেক কিছু নিষেদ থাকে, তার মধ্যে প্রদান হলো ভারী কাজ করা। কারণ এতে করে মেয়েদের সিজারের জায়গায় ইনফেকশন হতে পারে বা ব্যথা আসতে পারে। আবার অনেকে আছে তাদের ঘরের মধ্যে একা থাকাতে কাজ করতে হয় । তাই সিজারের কতদিন পর ভারী কাজ করা যায় এটি একটি বাড়তি চিন্তা । 

কিন্তু অনেক ক্ষেত্রে বিপদের সম্মুখীন হওয়ার সম্ভবনা থাকে বলে সিজারিয়ান মহিলাদের ভারী কাজ থাকে বিরত থাকতে হয়। তবে গাইনী স্পেশালিস্টরা বলেন একজন সিজারিয়ান মহিলা অন্তত সিজার হওয়ার পর ৬ সপ্তাহ পর্যন্ত কোন ভারী কাজ করতে পারবেন না। এতে করে সিজারিয়ান মহিলাদের সিজারের জায়গা খুব সহজে ব্যথা কমে যায়।
 

সিজারের কতদিন পর বাচ্চা নেওয়া যায়


এই প্রশ্নটা প্রায় দম্পতির মধ্যে দেখা যায় যে। সিজারের কতদিন পর বাচ্চা নেওয়া যায়।  কারণ অনেক দম্পতিরা আছে বিয়ে করেছেন দেরিতে। কিন্তু তাদের ছেলে মেয়েদের ভবিষ্যৎ নিয়ে চিন্তা করার কারণে অনেকে পরবর্তী আরেকটা সন্তান বা বাচ্চা নেওয়ার কথা ভাবেন সিজারের পর।


সিজারের কতদিন পর জার্নি করা যায়


বিশেষজ্ঞরা বলছে একবার সিজারের পর অন্তত দেড় বছর থেকে দুই বছর পর্যন্ত সময় নেওয়া উচিত যদি নরমাল ডেলিভারি হওয়ার চিন্তা করে থাকেন। এটি খুব উপযুক্ত সময়। কারণ এতে করে আগের সন্তানটি মোটামোটি সুস্থ থাকবেন। এবং পরেরবার আর তেমন কোন চিন্তা থাকে না।  তাই সিজারের পর বাচ্চা নেওয়ার সময় অন্তত ১.৫ থেকে ২ বছর।  


সিজারের  কতদিন  পর সেলাই মেশিন চালানো যায় 


যে মেয়েদের সেলাই প্রশিক্ষণ কেন্দ্র রয়েছে।  যারা সেলাই কাজ করে জীবিকা নির্বাহ করেন অথবা যারা গার্মেন্টসের কাজ করেন তারাই এই প্রশ্নের সম্মুখীন হয় যে সিজারের কতদিন পর সেলাই মেশিন চালানো যায়। কিন্তু কথা হচ্ছে আপনি  যদি মনে করেন যে আপনার সিজারের জায়গায় ব্যথা নাই বা শুকিয়ে গেছে, তাহলে আপনি নিজে সেলাই মেশিন চালাতে পারেন। 

কিন্তু সিজারের জায়গায় অনেক সময় শুকিয়ে গেছে মনে হলে ও ভিতরে কাঁচা থাকে সেই সেলাই। তাই সিজারের পর অন্তত ২ মাস পর্যন্ত মেশিন না চালানো ভাল। এতে করে সিজারের জায়গায় ব্লিডিং হওয়ার সম্ভবনা রয়েছে। বা ইনফেকশন ও হতে পারে। তাই পরামর্শ দেওয়া হয় যে ডাক্তারের নিয়ম অনুযায়ী চলাফেরা করা । 

সিজারের কতদিন পর মিলন করা যায়


একটি সন্তান হওয়ার অনেকদিন আগে থেকেই কিন্তু মিলন বা সহবাস বন্ধ করে দিতে হয়। যাতে করে অনাগত সন্তানের উপর কোন আঘাত না আসে। কিন্তু সিজার করার পরে মিলন করাটা অনেকের কাছে জরুরি হয়ে উঠে। তাই এই প্রশ্ন থাকে যে সিজারের কতদিন পর মিলন করা যায়। বা স্ত্রীর যেই স্থানে সিজার হয়েছে সেই স্থানে যাতে কোন আঘাত না হয় সে ক্ষেত্রে ও এই চিন্তা আসে। 


কিন্তু গায়নিকোলোজিস্টদের পরামর্শ  থাকে যে । যদি কোন মহিলার নরমাল ডেলিভারি হয়ে থাকে তাহলে তারা ৪ থেকে ৬ সপ্তাহ পরে মিলন করতে পারে। আর যদি সিজারের পর মিলন করতে হয়ে তাহলে অন্তত কমপক্ষে ৬ সপ্তাহ পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হবে। আর না হলে ডাক্তারের সাথে পরামর্শ নিতে পারেন।


শেষ কথা 


সিজারের কতদিন পর জার্নি করা যায় বা সিজারের কতদিন পর মিলন বলেন ভারী কাজ বলেন এমনকি ব্লিডিং কতদিন পর্যন্ত হয় সেই কথা ও আমরা পরিপূর্ণ বলার চেষ্টা করেছি। আশা করি আর চিন্তা থাকার কথা নই এই বিষয়ে। তাই সাথেই থাকবেন।  প্রয়োজনে কমেন্টস এর মাধ্যমে প্রশ্ন করতে পারেন।  চেষ্টা করবো সঙ্গ দেওয়ার। এতক্ষন আমাদের সাথে বন্ধুত্ব পূর্ন ভাবে সাথে থাকার জন্যে ধন্যবাদ।  

এই পোস্টটি পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন

পূর্বের পোস্ট দেখুন পরবর্তী পোস্ট দেখুন
এই পোস্টে এখনো কেউ মন্তব্য করে নি
মন্তব্য করতে এখানে ক্লিক করুন

সবারজন্যে.কম এর নীতিমালা মেনে এ কমেন্ট করুন। প্রতিটি কমেন্ট রিভিউ করা হয়।

comment url

এইটা একটি বিজ্ঞাপন এরিয়া। সিরিয়ালঃ ১