সিঙ্গাপুর ইলেকট্রিশিয়ান বেতন কত এবং সিঙ্গাপুর সর্বনিম্ন কাজের বেতন কত

সিঙ্গাপুর ইলেকট্রিশিয়ান বেতন কত

সিঙ্গাপুর ইলেকট্রিশিয়ান বেতন কত । সিঙ্গাপুর এখন সপ্নের শহর । প্রতিবছর আমাদের বাংলাদেশ থেকে প্রচুর মানুষ সিঙ্গাপুর পাড়ি দিচ্ছেন অর্থ উপার্জনের জন্যে। আবার কেউ কেউ পাড়ি দিচ্ছেন ভ্রমণের জন্যে বা টুরিস্ট হিসেবে। যাদের অর্থ উপার্জনের ইচ্ছে প্রবল তারাই কেবল জানার ইচ্ছার প্রকাশ করেন সিঙ্গাপুর কোন কাজের বেতন কত ।

সূচীপত্রঃকিন্তু আজকে আমরা এসেছি সিঙ্গাপুর ইলেক্ট্রিশিয়ান বেতন কত তা নিয়ে কথা বলার জন্যে। যারা ইলেক্ট্রিশিয়ান হিসেবে সিঙ্গাপুর যেতে যাচ্ছেন তাদের জন্যে এই আর্টিকেল। তাছাড়াও আরো অনেক কিছু বলার আছে যেমন সিঙ্গাপুর কোন কাজের চাহিদা বেশি এবং সিঙ্গাপুর সর্বনিম্ন বেতন কত ।

সিঙ্গাপুর কাজের ভিসায় কেন যাবেন

দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার মালয় উপদ্বীপের দক্ষিণতম প্রান্ত হল এই সিঙ্গাপুর । যা মালয়েশিয়া ও ইন্দোনেশিয়ার মাঝখানে অবস্থিত। এখন সিঙ্গাপুর মানুষের স্বপ্নের শহর হয়ে দাঁড়িয়েছে। 


কি নেই এই সিঙ্গাপুরে। অফিস, ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান, পর্যটন এরিয়া, শিল্পকারখানা, শপিং মল, সুপার মার্কেট এবং আরো সুন্দর্য মন্ডিত কত কি।বর্তমানে আনুমানিক ২০২৪ সালের সিঙ্গাপুরের জিডিপি ৭৯৪.১৭৯ বিলিয়ন দাঁড়িয়েছে। 


তাছাড়া মূল কথা হচ্ছে সিঙ্গাপুরের কাজের চাহিদা অনেক। যতবেশি বিশ্বের দরবারে সিঙ্গাপুর নিজেকে তুলে ধরছেন ততবেশি তাদের দক্ষ জনবলের প্রয়োজন হচ্ছে । এই সুবাদে তাদের শ্রম বাজারের দ্বার খুলছে। 


যেহেতু আমাদের দেশের শ্রম বাজার মোটামোটি অনেক কম সে হরে আমাদের দেশ থেকে মানুষ সিঙ্গাপুরে পাড়ি দিচ্ছেন বেশি। এবং অর্থ উপার্জন ও হচ্ছে তুলনামূলক ভাবে বেশি। এবং সেই সাথে দেশের রেমিটেন্স ও বৃদ্ধি পাচ্ছে। 


সিঙ্গাপুর কেন কাজের ভিসায় যাবেন এই কথা আর তেমন বলার প্রয়োজন হবে বলে আমি মনে করি না। বেতন যেহেতু বেশি কাজ ও এমন রয়েছে এই সিঙ্গাপুরে। তাই আপনি সিঙ্গাপুর কাজের ভিসায় আসবেন এটাই স্বাভাবিক ।

সিঙ্গাপুর ইলেক্ট্রিশিয়ান বেতন কত 

সিঙ্গাপুর এখন বিভিন্ন রকম কারখানা, এপার্টমেন্টে, শপিং মল তৈরী হচ্ছে। এবং নিত্যনতুন কত অফিস। এইসব কিছুর জন্যে সিঙ্গাপুর ইলেক্ট্রিশিয়ান দরকার হয়। যেহেতু তাদের দক্ষ জনবলের প্রয়োজন সেহেতু বিভিন্ন দেশ থেকে তারা ভাল এবং যোগ্যতাসম্পন্ন, মেধাবী ইলেক্ট্রিশিয়ানদের খুঁজে থাকেন। 


ভাল মানের বেতন দিয়ে হায়ার করে নিয়ে জান। ভাল সুযোগ সুবিধা দিয়ে থাকেন। সেই ক্ষেত্রে একজন ইলেকট্রিশিয়ানের বেতন সর্বনিম্ন ৬০ হাজার টাকা থেকে লক্ষ টাকার উপরে হয়ে থাকেন। 


তাই একজন ইলেক্ট্রিশিয়ান হিসেবে আপনার যদি ভাল বেতন ভোগ করতে চান তাহলে ভাল কাজের অভিজ্ঞতা নিয়েই আপনাকে সেখানে যেতে হবে। তবে সিঙ্গাপুর এই সব দেশে ইঞ্জিনিয়ারের প্লেন অনুযায়ী ইলেক্ট্রিকের কাজ গুলি করে থাকে। 


সে ক্ষেত্রে আপনাকে ভাল করে ইঞ্জিনিয়ারের ড্রয়িং সম্পর্কে ভাল ধারণা থাকতে হবে এবং ভাল কোন কারিগরি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে অভিজ্ঞতার সার্টিফিকেট থাকতে হবে ভাল বেতন ভোগ করতে চাইলে । 


আরও পড়তে পারেনঃ দুবাই জব ফর বাংলাদেশী

সিঙ্গাপুর কোন কাজের চাহিদা কেমন

সিঙ্গাপুর খুবই জনপ্রিয় এবং সুপ্রতিষ্ঠিত একটি দেশ সে হারে কাজের ও খুব চাহিদা থাকবে এটাই স্বাভাবিক। কিন্তু সিঙ্গাপুর কোন কাজের চাহিদা কেমন সেটা আমরা অনেকে জানিনা। অনেকে অনেক কাজের প্রতি দক্ষ এবং প্রতিষ্টিত। 

শুধু সিঙ্গাপুর ইলেকট্রিশিয়ান বেতন কত এই বার্তার উপর যদিও আমাদের এই আর্টিকেল। তারপর ও আমরা সিঙ্গাপুর কোন কাজের চাহিদা কেমন সেই বিষয়ে ও আমরা বলার চেষ্টা করবো। যেমন 


  • ইলেক্ট্রিশিয়ান 
  • সিভিল ইঞ্জিনিয়ার 
  • রোড ক্লিনার 
  • ফাক্টরীর কাজ 
  • ওয়েল্ডিং 
  • হোটেল বয় 
  • ড্রাইভিং 
  • গাৰ্ডেনিং 
  • গ্লাস ফিটিং 
  • রেস্টুরেন্ট 
  • কনস্ট্রাকশন 


 আরো অনেক কাজের জন্যে সিঙ্গাপুর মানুষের নিয়োগ দিয়ে থাকে। সময়োপযোগী কাজের জন্যে সার্কুলার বা এজেন্সির সাথে যোগাযোগ করা খুবই প্ৰয়োজন বিশেষ করে যারা সিঙ্গাপুর কাজের ভিসায় যেতে চান। 

সিঙ্গাপুর সর্বনিম্ন বেতন কত ২০২৪

সিঙ্গাপুর ইলেকট্রিশিয়ান বেতন কত এই কাজ ছাড়াও অনেকে জানতে চান যে ২০২৪ সালে সিঙ্গাপুর সর্বনিম্ন বেতন কত। অনেকের মাজে এই প্রশ্ন এখনো রয়েছে । 

আসলে যারা বিশেষ করে কোন কাজে বিশেষ পারদর্শী নয় বা লোকাল কাজের জন্যে যারা সিঙ্গাপুরে যাওয়ার জন্যে চেষ্টা করছেন বা আশা করেছেন তারাই এই প্রশ্ন করে থাকেন বা জানতে চান । 


সিঙ্গাপুর ইলেক্ট্রিশিয়ান বেতন কত

আমরা এই আর্টিকেলে এই প্রশ্নের উত্তর ও দেওয়ার চেষ্টা করবো। সিঙ্গাপুর সর্বনিম্ন বেতন ২০২৪ সালে ৬০ হাজার টাকা। এবং এটি আরো বেশি হয়ে প্রায় ১ লক্ষ টাকা পর্যন্ত ছাড়িয়ে যেতে পারে । 


ধীরে ধীরে কাজের অভিজ্ঞতার উপর ভিত্তি করে হয়ে থাকে। তবে আপনি ওভার টাইম সহ যদি কাজ করেন তাহলে আরো অনেক বেশি টাকা বেতন হিসেবে ভোগ করতে পারবেন । 

সিঙ্গাপুর যেতে কত টাকা লাগে ২০২৪

আমরা শুধু সিঙ্গাপুর ইলেক্ট্রিশিয়ান বেতন কত বা অন্যান্য কাজের বেতন কত সেই নিয়ে জানার আগ্রহ দেখায়। কিন্তু আপনি যে সিঙ্গাপুর যাবেন  ২০২৪ সালে সিঙ্গাপুর যেতে কত টাকা লাগে সেটা জানেন কি ? সেই হিসেব ও করার প্রয়োজন রয়েছে। 

কারণ আপনি ভাল বেতনের আশা করার আগে সিঙ্গাপুর যেতে কি পরিমান টাকা লাগতে পারে সেটা জানা খুবই জরুরি। সিঙ্গাপুর যেতে এজেন্সির মাধ্যেম গেলে আপনাকে অন্তত ৫ থেকে ৬ লাখ টাকা পর্যন্ত গুনতে হবে। 


আবার সরকারি ভাবে যদি যেতে চান তাহলে ৪ থেকে ৫ লক্ষ টাকা পর্যন্ত খরচ হতে পারে। এই টাকা আপনাকে জোগাড় রাখতে হবে না হলে আপনি সিঙ্গাপুর যেতে পারবেননা। ভাল বেতনের আশা করলে ভিসার দাম ও ভাল পরিমান হাঁকিয়ে থাকেন এজেন্সি কোম্পানিগুলি।  


তবে আপনার স্কিল এবং দক্ষতার পরীক্ষা দিয়ে যদি যেতে চান তাহলে আপনি অনেক কম খরচে যেতে পারবেন। তবে মনে রাখতে হবে এই ক্ষেত্রে আপনার স্বাস্থ্য পরীক্ষায় টিকতে হবে এবং কারিগরি শিক্ষা বোর্ড থেকে আপনার কাজের অভিজ্ঞতার সনদ থাকতে হবে। 


সেদিকে লক্ষ্য রাখবেন বা খুঁজে খবর রাখতে হবে যে কোথায় এই সিঙ্গাপুর কাজের জন্যে সার্কুলার দিয়ে থাকে। এবং ভিসার জন্যে আবেদন করতে হবে বা করা জরুরি। তাহলে আপনি অল্প টাকায় সিঙ্গাপুর পৌঁছে যেতে পারবেন । 


প্রয়োজনীয় ও জানার কথাঃ কাতারে ফ্রি ভিসার দাম কত ?

সিঙ্গাপুর ড্রাইভিং ভিসা বেতন কত

সিঙ্গাপুর অনেক ভিসার মধ্যে ড্রাইভিং ভিসার চাহিদা অনেক বেশি এবং বেতন ও খুব ভাল। তবে সিঙ্গাপুর দুই ধরনের ড্রাইভিং ভিসা রয়েছে । একটি হলো কোনো কোম্পানির মাধ্যমে এবং আরেকটি হলো প্রাইভেট ভাবে। 

এখানে দুই ধরনের ড্রাইভিং ভিসার একেক ড্রাইভিং ভিসার একেক রকম ভিসা। সুবিধা অসুবিধা ও ভিন্ন। তবে মনে রাখতে হবে যে ড্রাইভিং ভিসার মধ্যে সুবিধা রয়েছে ভাল সেখানে একটু বেতন কম। আবার সুবিধা যেখানে বেশি সেখানে একটু বেতন বেশি । 


তবে ড্রাইভিং ভিসায় সর্বনিম্ন বেতন হচ্ছে ৬০ হাজার টাকা টাকা খাওয়া যদি কোম্পানি বহন করে। আর যদি আবাসন এবং খাওয়ার ব্যবস্থা নিজের হয় তাহলে বেতন একটু বেশি হয়ে থাকে প্রায় ৮০ হাজার টাকার কাছাকাছি । ওভার টাইম ডিউটি ছাড়া। ওভার টাইম হলে সেক্ষেত্রে আরো বৃদ্ধি পাবে ।   

সিঙ্গাপুরে শ্রমিকের বেতন কত ২০২৪

সিঙ্গাপুর শ্রম বাজার যেহেতু খুবই বেশি সেহেতু শ্রমিকের প্রয়োজন হয় বেশি। বিভিন্ন এপার্টমেন্ট এবং অফিস নিয়ত তৈরী হচ্ছে এবং বিভিন্ন কোম্পানির কাজের জন্যে শ্রমিকের প্রয়োজন পড়ছে। 


সিঙ্গাপুর শ্রমিকের বেতন এজেন্সির সাথে চুক্তি অনুযায়ী হওয়ার কথা হলো ৪৬ হাজার ৮০০ টাকা। কিন্তু সেক্ষেত্রে অনেকে এজেন্সির সাথে চুক্তি করে আরো কম টাকা দিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন । 


তবে এই বিষয়গুলি যদি একটু নজরে রাখেন যারা শ্রমিক ভিসায় বেতনের জন্যে সিঙ্গাপুর যাচ্ছেন তারা। তাহলে তাদের জন্যে আরো কোন চিন্তার কারণ নেই। 


আমরা এই আর্টিকেলে বলার চেষ্টা করেছি যে সিঙ্গাপুর বিভিন্ন রিয়েল এস্টেড বা আবাসন কোম্পানি গুলি যে টাকা দিয়ে একজন শ্রমিক কে বেতন দেয় তা তুলে ধরার জন্যে। এবার আপনি যাওয়ার সময় এজেন্সির মালিকদের সাথে সেই রকম ভাবে চুক্তি করে যাবেন সেটাকে একান্তই আপনার ব্যাপার । 

সিঙ্গাপুর ইলেকট্রিশিয়ান বেতন কত এই নিয়ে শেষ কথা

সিঙ্গাপুর ইলেকট্রিশিয়ান বেতন কত । এই নিয়ে আশা করি আর তেমন কিছু জানার নেই। কারণ স্বরূপ আমরা বলার চেষ্টা করেছি শুধু সিঙ্গাপুর ইলেকট্রিশিয়ান বেতন কত তাই নই। সিঙ্গাপুর কোন কাজের চাহিদা কেমন এবং অন্যান্য কাজের বেতন কেমন তাও নিয়ে আমরা আলোচনা করেছি ।

তবে সর্বশেষ বার্তা থাকবে আপনারা সিঙ্গাপুর যে কাজে যাবেন না কেন দেখে শুনে বুজে তারপর সিঙ্গাপুর কাজের জন্যে রওনা দেবেন ।  ধন্যবাদ আজেকের মত শেষ করছি। ভাল থাকবেন সুস্থ থাকবেন আবারো অন্য কোনো আর্টিকেল নিয়ে দেখা হবে । 

এই পোস্টটি পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন

পরবর্তী পোস্ট দেখুন
এই পোস্টে এখনো কেউ মন্তব্য করে নি
মন্তব্য করতে এখানে ক্লিক করুন

সবারজন্যে.কম এর নীতিমালা মেনে এ কমেন্ট করুন। প্রতিটি কমেন্ট রিভিউ করা হয়।

comment url

এইটা একটি বিজ্ঞাপন এরিয়া। সিরিয়ালঃ ১